নভেম্বর ২৮, ২০২১

লক্ষ্মীপুর নিউজ

দিন বদলের প্রত্যয়ে

আদর্শ সমাজ গঠনে নিজেকে নিয়োজিত রাখতে চাই।১০ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর প্রার্থী রুবেল

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ লক্ষ্মীপুর পৌরসভা নির্বাচনকে সামনে রেখে বিভিন্ন ওয়ার্ডে বইছে নির্বাচনীয় হাওয়া। চলছে সবজায়গা নির্বাচনী আমেজ। কারা হচ্ছেন নির্বাচনে কমিশনার পদে জ্য়ী? এরই মধ্যে ১০নং ওয়ার্ডের একজন সফল কাউন্সিলর প্রার্থীর নাম শোনা যাচ্ছে মানুষের মুখে মুখে যিনি বিগত সময়ে মানুষের সুখে দুঃখে পাশে ছিলেন কাজ করেছেন
অসহায় মানুষদের জন্য।যিনি রাজনৈতিক অঙ্গনে আছে বিশেষ পরিচিতি শুরু করেন ছাত্রলীগ দিয়ে প্রথমে ওয়ার্ড ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেছেন। নেতৃত্বে ভালো গুন থাকায় ওয়ার্ড ছাত্রলীগের সভাপতি পদে যান, নেতৃত্বের গুণাবলী তে দখল করে নেন পৌর ছাত্রলীগের সহ-সভাপতির পদ। ছাত্রলীগের এই নেতা তার একনিষ্ঠ নেতৃত্তের কারণে জেলা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদকের পদে ও দায়িত্ব পালন করেছেন। কর্মীবান্ধব এই নেতা পৌর যুবলীগের সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন তিনি। ১০ নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা জনপ্রিয় এই কাউন্সিলর প্রার্থী রুবেল চৌধুরি উটপাখি মার্কা নিয়ে নির্বাচন করছেন। 

তার সম্পর্কে এলাকায় সাধারণ মানুষের সাথে কথা বলে জানতে পারি রুবেল চৌধুরি ১০ নং ওয়ার্ডে সকল পেশা শ্রেনীর মানুষের কাছে অত্যন্ত জনপ্রিয় একটি নাম। তিনি খেটে খাওয়া অবহেলিত সুবিধাবঞ্চিত মানুষের দুঃখ ও দুর্দশার কথা মনযোগ দিয়ে শোনেন এবং নিজ তহবিল থেকে প্রয়োজনীয় সাহায্য দিয়ে গরীব দুঃখী মানুষের পাশে দাড়ানোর সর্বোচ্চ চেষ্টা করেন। আলাপকালে রুবেল চৌধুরি
জানান যে, লক্ষ্মীপুর পৌরসভা ১০ নং ওয়ার্ডের মানুষের সাথে কাধে কাধ মিলিয়ে র্দীঘদিন কাজ করেছি। এখনও বিভিন্ন কাজ করে যাচ্ছি। তবে আমি বিশ্বাস করি জনপ্রতিনিধিরাই পারে এলাকার মানুষের ও রাস্তা ঘাটের ভাগ্য পরিবর্তন করতে । আর সেই অনুভূতি থেকেই জনগনের স্বপ্ন পূরনের লক্ষ্যে লক্ষ্মীপুর পৌরসভার কাউন্সিলার ১০ নং ওয়ার্ডে উট পাখি মার্কা নির্বাচন করতে আগ্রহ প্রকাশ করছি।যুবলীগ এই নেতা কাউন্সিলর প্রার্থী জানান আদর্শ সমাজ গঠনে নিজেকে নিয়োজিত রাখতে চাই।

পৌরসভা নির্বাচনে ১০ নং ওয়ার্ডে কাউন্সিলর প্রার্থী হিসেবে আমি সকলের দোয়া ও সমর্থন প্রার্থী। আমি নির্বাচিত হলে ১০ নং ওয়ার্ডের দীর্ঘদিনের চিহ্নিত সমস্যা মাদক, সন্ত্রাস নির্মূলে সচেষ্ট হবো, তিনি এজন্য সকলের দোয়া ও সমর্থন চেয়েছেন। এবং অভিপ্রায় ব্যক্ত করেন যে, নির্বাচিত হয়ে এলাকার শিক্ষা ব্যবস্থার উন্নয়ন ও মাদক নির্মুল এর উপর সর্বোচ্চ জোর দিয়ে কাজ করবেন। যা পৌরসভার ১০ নং ওয়ার্ডের জনগনের প্রানের দাবি। প্রার্থী আরো বলেন, সকল সমস্যা নির্মূল করার আগে মাদক নির্মূল করতে হবে। এবং মাদক নির্মূল করলেই সকল সমস্যার সমাধান হয়ে যাবে। আমাকে জনগণ কি স্থানে রাখবে সেটা জনগণ নির্ধারণ করবে। সুতরাং আমি সর্বক্ষণ জনগণের পাশে থাকার চেষ্টা করব। আমি বলতে পারি আমার ওয়ার্ডে মাদক, বাল্যবিবাহ, নারী নির্যাতন, ধর্ষণ, শিশুশ্রম, ইভটিজিং, চুরি, সন্ত্রাসী, ডাকাতি, ছিনতাইকারীর কোন স্থান হবেনা এই ওয়ার্ডে ।

Please follow and like us:
error20
Tweet 20
fb-share-icon20